সরকার পাটের অভ্যন্তরীণ ব্যবহার বাড়িয়েছে: বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী

বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেছেন, ‘সোনালি আঁশ পাটকে নতুন করে বিশ্ববাসীর কাছে তুলে ধরা হচ্ছে। এজন্য কাঁচা পাটের রপ্তানিনির্ভরতা কমিয়ে পাটের অভ্যন্তরীণ ব্যবহার বাড়িয়েছে সরকার।’
মঙ্গলবার রাজধানীর জুট ডাইভারসিফিকেশন প্রমোশন সেন্টারের  (জেডিপিসি) সম্মেলন কক্ষে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।
আগামী ১২ জানুয়ারি জুট ডাইভারসিফিকেশন প্রমোশন সেন্টারে বহুমুখী পাটপণ্যের প্রদর্শনী ও বিক্রয় শুরু হবে।
বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী বলেন, বহুমুখী পাটজাত পণ্য উৎপাদন, বাজারজাতকরণ ও রপ্তানিতে সব ধরনের সহায়তা দেওয়া  হচ্ছে। এজন্য পাটজাত পণ্য ও পাটকাঠি থেকে উৎপাদিত কার্বন রপ্তানির বিপরীতে ২০ শতাংশ রপ্তানি ভর্তুকি ও নগদ সহায়তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া অন্যান্য কৃষিপণ্য যে ধরনের ব্যাংক ঋণ ও আর্থিক সহায়তা পায় পাটও কৃষিপণ্য হিসেবে সে ধরনের সহায়তা পাবে।
তিনি আরো বলেন, সরকার দেশের ভেতরে ছয়টি পণ্য যথা- ধান, গম, চাল, ভুট্টা, চিনি এবং সার মোড়কীকরণের ক্ষেত্রে পাটজাত পণ্যের ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। আরো ১২টি পণ্য মোড়কীকরণে পাটজাত পণ্যের ব্যবহার বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে। পাটের ন্যায্যমূল্য নির্ধারণ ও পরিবেশ রক্ষায় পণ্যের মোড়কীকরণে পাটের বাধ্যতামূলক ব্যবহারে আইন প্রণয়ন করা হয়েছে।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- জেডিপিসির নির্বাহী পরিচালক বেগম নাসিমা বেগম (যুগ্ম সচিব), বাংলাদেশ জুট ডাইভারসিফাইড প্রডাক্ট মেনুফেকচারার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিডিজেএমইএ) আহ্বায়ক মো. রাশেদুল করিম মুন্নাসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।বিজ্ঞপ্তি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *